পাক-নাপাক সংক্রান্ত কিছু জরুরি মাসায়েল

  بسم الله الرحمن الرحيم       1.  তোশক পবিত্র করার নিয়ম   তোশক বা এজাতীয় জিনিশ- যা নিংড়ানো যায় না- তাতে নাপাকি লাগলে যদি তা উপরের আবরণে লেগে থাকে এবং ভিতরে প্রবেশ না করে, তাহলে সে নাপাকি দূর করে দেয়া বা তিন বার তার উপর দিয়ে পানি প্রবাহিত  করে দেয়ার দ্বারা তা পাক …

আরো দেখুনপাক-নাপাক সংক্রান্ত কিছু জরুরি মাসায়েল

আন্ত:ধর্ম বিবাহ আইন

মু. তাউহীদুল ইসলাম বিবাহ মানবজীবনের এক অবিচ্ছেদ্য বিষয়। মুসলমানদের ধর্মীয় জীবনে এর যথেষ্ট গুরুত্ব রয়েছে। কুরআন হাদীসে এর সুনির্দিষ্ট সীমা-রেখা টেনে দেয়া হয়েছে অত্যন্ত গুরুত্বও যত্নের সাথে। একে তাচ্ছিল্যের দৃষ্টিতে দেখার কোনো সুযোগ নেই। ইতিমধ্যে আন্ত:ধর্ম বিবাহ আইন প্রণয়নের ব্যাপারে কথা উঠেছে। আমরা মর্মাহত হয়েছি। ভাবতে কষ্ট হয়, মুসলিমপ্রধান এই দেশে কী করে এমন একটি …

আরো দেখুনআন্ত:ধর্ম বিবাহ আইন

যাকাতের ফাযাইল ও মাসাইল

মুফতি তাউহিদুল ইসলাম মুফতি,জামিয়া রাহমানিয়া আরাবিয়া ইসলামের পাঁচটি স্তম্ভের মধ্যে অন্যতম  হচ্ছে যাকাত। শরীয়তের দৃষ্টিতে যাকাতের অনেক গুরুত্ব ও ফযীলত রয়েছে এবং যাকাত আদায় না করলে রয়েছে অত্যন্ত ভয়াবহ  শাস্তির সতর্কবাণী। নবী কারীম সা. এর ইন্তিকালের পর একগোত্র যাকাত আদায়ের অস্বীকার করলে হযরত আবু বকর সিদ্দীক রা. তাদের বিরুদ্ধে যুদ্ধের ঘোষণা দেন এবং যুদ্ধ করেন …

আরো দেখুনযাকাতের ফাযাইল ও মাসাইল

রোযার ফাযাইল ও মাসাইল

রমযানের রোযা ইসলামের পাঁচ স্তম্ভের অন্যতম। ঈমান, নামায ও যাকাতের পরই  রোযার স্থান। রোযার আরবী শব্দ সাওম। যার আভিধানিক অর্থ হচ্ছে- বিরত থাকা। পরিভাষায় সাওম বলা হয়, প্রত্যেক সজ্ঞান, বালেগ মুসলমান নরনারীর সুবহে সাদিক থেকে সূর্যাস্ত পর্যমত রোযার নিয়তে পানাহার, স্ত্রী সহবাস ও রোযা ভঙ্গকারী সকল কাজ থেকে বিরত থাকা। সুতরাং রমযান মাসে চাঁদ উদিত …

আরো দেখুনরোযার ফাযাইল ও মাসাইল

মাকরুহ সময়ে তাহিয়্যাতুল মাসজিদ বা তাহিয়্যাতুল ওযু পড়া:

জিজ্ঞাসা : একজন মুসল্লী তাহিয়্যাতুল মসজিদ এবং তাহিয়্যাতুল ওযু পড়তে অভ্যস্ত। কিন্তু অনেক সময় মাকরূহ বা নিষিদ্ধ সময়ে ওযু করে মসজিদে প্রবেশ করে। তাই ঐ মুসল্লির জন্য ঐ সময় নামাজ পড়ার অনুমতি আছে কি না? এই ক্ষেত্রে তার করণীয় কী? আসলাম জকী হবিগঞ্জ জবাব : নিষিদ্ধ বা মাকরূহ সময়ে তাহিয়্যাতুল মসজিদ বা তাহিয়্যাতুল ওযুর নামাজ …

আরো দেখুনমাকরুহ সময়ে তাহিয়্যাতুল মাসজিদ বা তাহিয়্যাতুল ওযু পড়া: